মেনু নির্বাচন করুন
পাতা

ভবিষ্যৎ পরিকল্পনা

ক) যুবদের ন্যায়নিষ্ঠ, আধূনিক জীবরবোধসম্পন্ন, আত্মমর্যাদাশালী ও ইতিবাচক মানুষ হিসাবে গড়ে তোলা।

খ) যুকদের অন্তর্নিহিত সম্ভাবনা বিকাশের অনুকূল পরিবেশ সৃষ্টি করা।

গ) যুবদের মানবসম্পদে পরিণত করা।

ঘ) যুবদের মানসম্পন্ন শিক্ষা, স্বাস্থ্য ও সার্বিক নিরাপত্তা নিশ্চিত করা।

ঙ) যুবদের যোগ্যতা অনুযায়ী পেশা ও কর্মের ব্যবস্থা করা।

চ) যুবদের অর্থনৈতিক ও সৃজনশীল কর্মোদ্যোগ ও ক্ষমতায়ন উৎসাহিত করা।

ছ) ক্ষমতায়নের মাধ্যমে যুবদের জাতীয় জীবনের সর্বস্তরে সক্রিয় ভূমিকা পালনে সক্ষম করে তোলা।

জ) স্থানীয়, জাতীয় ও আন্তর্জাতিক পর্যায়ে সিদ্ধান্ত গ্রহণ প্রক্রিয়ায় যুবদের সম্পৃক্ত করা।

ঝ) পরিবেশ সংরক্ষণ, জলবায়ু পরিবর্তন ও দুর্য়োগ মোকবিলাসহ জাতি গঠনমূলক কার্যক্রমে স্বোচ্ছাসেবী হতে যুবদের উৎসাহিত করা।

ঞ) সমাজে অনগ্রসর এবং শারীরিক-মানসিক বা অন্য কোনো প্রতিবন্ধকতার শিকার মানুষের প্রাত যুবসমাজকে সংবেদনশীল ও দায়িত্বশীল করে তোলা।

ট) বিশেষ চাহিদাসম্পন্ন যুবদের অধিকার নিশ্চিত করা।

ছবি


সংযুক্তি



Share with :

Facebook Twitter